Home » বরিশাল » লিটন বাশার বেঁচে থাকবেন তার কর্মযজ্ঞে

লিটন বাশার বেঁচে থাকবেন তার কর্মযজ্ঞে

ডেস্ক রিপোর্ট : লিটন বাশার একজন সৎ ও সাহসী সাংবাদিক ছিলেন। বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশ করে তিনি পাঠকের মনে স্থান করে নিয়েছেন। মানুষ তাকে কোনদিন ভুলবেনা। তার কাজই তাকে চিরদিন মানুষের মাঝে বাঁচিয়ে রাখবে। সাহসী সাংবাদিক লিটন বাশারের অকাল মৃত্যুতে শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত বরিশাল প্রেসক্লাব আয়োজিত স্মরণ সভায় বক্তারা এক কথা বলেন। প্রেসক্লাবের সভাপতি কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত স্মরণ সভায় বক্তব্য রাখেন- সাবেক সচিব সিরাজ উদ্দিন আহম্মেদ, প্রবীণ সাংবাদিক মানবেন্দ্র বটব্যাল, সাবেক এমপি ও বিএনপি’র যুগ্ম মহাসচিব এ্যাড. মজিবর রহমান সরোয়ার, বরিশাল শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যান প্রফেসর মু. জিয়াউল হক, পুলিশ কমিশনার এসএম রুহুল আমিন, বিএম কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর স.ম ইমামুল হাকিম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক জাকির হোসেন, এএসপি আতিকুর রহমান, সমাজসেবি ডাঃ হাবিবুর রহমান, নাট্যজন সৈয়দ দুলাল, সাংবাদিক আলম রায়হান, লিটন বাশারের পিতা আব্দুল কাদের হাওলাদার, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এসএম জাকির হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক পুলক চ্যাটার্জী, যুগান্তরের বরিশাল ব্যুরো প্রধান আক্তার ফারুক শাহীন, সাবেক সহ সাধারণ সম্পাদক কাজী মিরাজ, কাজী আল মামুন প্রমুখ। স্মরণ সভায় বক্তারা বলেন-লিটন বাশঅর ৪৫ বছর বয়সে যা অর্জন করেছিলেন পরিণত বয়সে একজন সাংবাদিক তা অর্জন করতে পারে না। পরিশ্রম, সৎ সাহস ও মেধাই তাকে এই উচ্চ স্থানে পৌছে দিয়েছে। এ কারনেই আজ মানুষ তাকে স্মরণ করছে। বক্তারা লিটন বাশারের প্রকাশিত সাংবাদিক সংকলন প্রকাশের দাবী জানান এবং তরুণ সাংবাদিকদের তা অনুকরণ করার আহ্বান জানান। স্মরণ সভায় প্রয়াত লিটন বাশারের পিতা আব্দুল কাদের হাওলাদার অশ্র“সিক্ত কন্ঠে বলেন- সন্তানের লাশ বহন করা যে কত কঠিন তা আমি উপলব্ধি করেছি। তিনি বলেন-বিভিন্ন প্রতিকূল সময়ে তাকে সাংবাদিকতা পেশা ছেড়ে দিতে বললেও লিটন এ পেশা ছাড়েনি। আজ প্রেসক্লাবে লিটনের স্মরণ সভায় এসে উপস্থিত বরিশালের সুধিজনের মুখে লিটনের কৃতিত্বের কথা শুনে আমার গর্ব হয়। স্মরণ সভা শেষে মরহুম লিটন বাশারের রূহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া ও মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।